Categories
আলোচিত সংবাদ

jbhk

Categories
আলোচিত সংবাদ

hghgygugu

Categories
আলোচিত সংবাদ

তীব্র গরমে স্বস্তি দেবে যেসব রঙের পোশাক

কাজের প্রয়োজনে এই গরমে যাদের বাইরে বের হতে হচ্ছে, তাদের অবস্থাটা সহজেই অনুমেয়। গরমে ভারী কাপড়ের পোশাক না পরে হালকা ধরনের পোশাক পরুন। এ সময়ে সুতির নরম কাপড়ের পোশাকের কোনো বিকল্প নেই। সুতির নরম কাপড় খুব দ্রুতই ঘাম শুষে নেয়।

গরমে পোশাকের রং নির্বাচনের সময়ও সচেতন হতে হবে। হালকা রং বেছে নেওয়াই ভালো। চড়া ও গাঢ় রঙের তাপশোষণ ক্ষমতা বেশি। এ ছাড়া গরমে এ ধরনের রঙের পোশাক চোখেও লাগে। সাদা রঙের তাপশোষণ ক্ষমতা কম।

তাই গরমে এই রঙের পোশাকের সংগ্রহ ও ওয়ার্ডরোবে থাকা ভালো। সাদার পাশাপাশি যেকোনো হালকা রঙের পোশাকও গরমে স্বস্তি দেবে। পিচ কালার, হালকা টিয়া সবুজ বা মিষ্টি গোলাপির মতো রঙেও মিলবে আরাম।

তবে অনেকে আছেন যারা উজ্জ্বল রঙের পোশাক পরতে ভালোবাসেন, এড়িয়ে যান হালকা রং। তাদের জন্য পরামর্শ, পোশাকের মূল রং (বেজ কালার) হালকা রেখে এর ওপর উজ্জ্বল কাজের মোটিফ বেছে নিতে পারেন। এই যেমন সাদা টপ বেছে নিলেন, সেই টপসের মাঝ বরাবর থাকতে পারে হাতে আঁকা নকশা। আবার নকশিকাঁথার কাজও থাকতে পারে।

পোশাকে খুব বেশি জমকালো কাজ এ সময়ে এড়িয়ে যাওয়াই ভালো। এই যেমন চুমকি, কাচ বা লেসের কাজ। পোশাকজুড়ে থাকা কাজও এই আবহাওয়ায় বেমানান। এ ধরনের জমকালো পোশাক নিজের জন্য যেমন কষ্টদায়ক, অন্যের চোখের জন্যও অস্বস্তিকর।

Categories
আলোচিত সংবাদ

সবাই কেন আপনাকেই বিছানায় যাওয়ার প্রস্তাব দেয়?

কদিন আগেই একটি গণমাধ্যমে নাটক সিনেমার প্রযোজকের অনৈতিক প্রস্তাব সম্পর্কে নিজের অভিজ্ঞতা শেয়ার করেন লাক্স তারকা ফারিয়া শাহরিন। তার সেই বক্তব্যের পর থেকে আলোচনা শুরু হয় তাকে নিয়ে। এবার তার ওই সাক্ষাৎকারের বিপরীতে প্রতিবাদ করে মুখ খুললেন আরেক লাক্স তারকা নাফিজা জাহান। রোববার রাতে (১৪ জানুয়ারি) ফেসবুক লাইভে এসে ফারিয়ার কথার তীব্র সমালোচনা করেন তিনি। সেই সঙ্গে যে গণমাধ্যমটিতে সেই সাক্ষাৎকার ছাপা হয় সেটিও একহাত দেন।

লাইভে এসে ফারিয়াকে উদ্দেশ্য করে নাফিজা জাহান বলেন, আপনাকে কেন সবাই কফি খাওয়ায়, বিছানায় যাওয়ার প্রস্তাব দেয়? দেশের নামকরা অভিনেত্রীরা তো এমন অভিযোগ করেন না। কেন পুরো মিডিয়াকে আপনি খারাপ বলছেন? সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে একটি ভিডিও বার্তায় এসব কথা বলেন নাফিজা। তিনি ফারিয়াকে উদ্দেশ করে বলেন, আপনি কিন্তু দুধে ধোয়া তুলশিপাতা না।

লাইভের শুরুটাই নাফিজা শুরু করেন গণমাধ্যমে প্রকাশতি ওই লেখাটির সূত্র টেনে। তিনি বলেন, সকাল বেলা ঘুম ভাঙার পর একটা নিউজ দেখলাম। এরপর আমি টাইম বের করার চেষ্টা করছিলাম যে কখন লাইভে আসবো। কারণ নিউজটি দেখার পর গা কিটমিট করছিল যে আমি আর সহ্য করতে পারলাম না। একজন আপা, আপা তার লাইফের হিস্টোরি লিখেছেন মিডিয়া নিয়ে।

নাফিজা আরও বলেন, মিডিয়া অনেক খারাপ, মিডিয়া যদি অনেক খারাপই হয়ে থাকে তাহলে আপনি কেন মিডিয়ায় এসেছেন? আপনার বাপ-মা আপনাকে আটকায় রাখতে পারেন নাই।

ভাই যদিও আমি অনেকটা সময় মিডিয়ায় ছিলাম না, কিন্তু মিডিয়াতে তো ছিলাম। মিডিয়ার মানুষজন আমাদের তো পাবলিকের কাছে এতোটা নিচে নামানোর প্রয়োজন নেই। উনাকে নাকি অনেকেই অফার দিয়েছিলেন, কফি খাওয়ার জন্য এটা সেটা করার জন্য। করলেন না কেন? শোনেন, যদি শুধু খারাপই হয়ে থাকে তাহলে আজ একজন সুবর্ণা মোস্তফা তৈরি হতো না। শোনেন, ভালো খারাপ সব জায়গাতেই আছে। নিজে ভালো তো দুনিয়ার সব ভালো। নিজেকে ঐটা ম্যানেজ করতে শিখতে হবে।

নাফিজা বলেন, আপনাকে এখন লোকজন কাজে নেয় না দেখে যে মিডিয়াকে আপনি এতো নিচে নামায় দিতে পারেন। আপনি এগুলো বলে কী প্রমাণ করতে চান? মিডিয়ার পয়সা একদিন হলেও বাসায় গেছে। আমি একটা সময় কাজ করতাম মিডিয়ায়, এজন্য আমার গায়ে লাগছে। আপনি দুধে ধোঁয়া তুলশিপাতা না। আপনি যদি মিডিয়াতে না আসতেন আজ আপনাকে কেউ চিনতো না।

মিডিয়াতে এখন খুব একটা কাজ করছেন না ফারিয়া। তবে করছেন না বলে কাজ পাচ্ছেন না বলেই মন্তব্য নাফিজার। বিষয়টি উল্লেখ করে নাফিজা বলেন, আজ আপনাকে কেউ কাজে নেয় না বলে মিডিয়াটাকে নেগেটিভ করে মাটির সাথে মিশিয়ে দিয়ে ফেমাস হবেন? এগুলো করে লাভটা কী? ওপরে থু থু ফেললে নিজের গায়েই সেটা পড়ে। আজ আপনার কাজ নাই বলে আপনি মিডিয়াটারে যা তা বলবেন। আজ আপনি বলেন, প্রডিউসারের সাথে শুতে যান না বলে আপনার পেমেন্ট দেয় না, আপনি এমন … হয়ে গেছেন?

লাইভে মিডিয়ার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শমী কায়সার, বিপাশা হায়াত, সুবর্ণা মোস্তফা তাদের কথা উল্লেখ করে নাফিজা জানতে চান, মিডিয়ায় এদের মতো তারকারাও তো আছেন। তারা তো এমন অভিযোগ করে না। কিন্তু তারা জানে কীভাবে কি করতে হয়। আমি এখন মিডিয়াতে নেই, কিন্তু মিডিয়ার প্রতি আমার ভালোবাসা আছে। আমি নাফিজা ছিলাম, মানুষ আমাকে চেনে মিডিয়ার কল্যাণে। তুমি যেখানে যাওয়ার যাও, মিডিয়াকে কালার করার কী দরকার? আপনাকে একাই কফির দাওয়াত দেয়, আর কাউকে দেয় না?

২০০৮ সালে লাক্স চ্যানেল আই সুপার স্টার প্রতিযোগীতার মাধ্যম মিডিয়ায় যাত্রা শুরু করেন ফারিয়া। বাংলালিংকের একটি বিজ্ঞাপনে অংশ নিয়ে সবার নজরে আসেন ফারিয়া। সামিয়া জামান পরিচালিত ‘আকাশ কত দূরে’ চলচ্চিত্রে ও টিভি নাটকে অভিনয় করেছেন ফারিয়া। এখন মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুর এশিয়া প্যাসিফিক ইউনিভার্সিটি অব টেকনোলজি অ্যান্ড ইনোভেশনে মিডিয়া মার্কেটিং বিষয়ে স্নাতকোত্তর ডিগ্রিতে পড়ছেন। অন্যদিকে লাক্স তারকা হয়ে মিডিয়া যাত্রা শুরু করেন নাফিজা। অভিনয় দিয়ে একসময় জনপ্রিয়তাও পান। কিন্তু এখন আর অভিনয় করছে না তিনি। নিউ ইয়র্কের ব্রুকলিনে বসবাস করেন এই অভিনেত্রী।

Categories
আলোচিত সংবাদ

কাজ শুধুু দাঁড়িয়ে থাকা, মাসে আয় সাড়ে ৫ লাখ টাকা

বিরক্তিকর কয়েকটি কাজের কথা জানতে চাইলে, ‘লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা’ তালিকার উপরের দিকেই থাকবে। আর কাজটি যদি করতে হয় অন্যের জন্যে, তবে তো কথাই নেই। বিরক্তির মাত্রা বেড়ে যায় কয়েক গুণ। তবে কেউ কেউ আবার এই দাঁড়িয়ে থাকাকেই পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন। মাসে আয় করছেন ৫ লাখ টাকারও বেশি।

সম্প্রতি এমনই এক অদ্ভুত পেশার দেখা মিলেছে ইংল্যান্ডে। ফ্রেড্ডি বেকিট নামের এক ব্যক্তি লাইনে দাঁড়িয়ে থাকাকে পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন। তিনি মূলত বিত্তবানদের জন্য লাইনে দাঁড়িয়ে থেকে মোটা অংকের টাকা আয় করছেন।

বেকিট সাধারণত প্রতি ঘণ্টা লাইনে দাঁড়িয়ে থাকার জন্য ২০ পাউন্ড চার্জ নেন। তার ভাষ্যমতে, এই কাজটি বেকিটের কাছে কোনো ধরণের লবিং ছাড়াই এসেছে। তিনি দাঁড়িয়ে থাকার কাজ একটি শিল্পের পর্যায় নিয়ে গেছেন।

যুক্তরাজ্য ভিত্তিক সংবাদমাধ্যম দ্য সান এর প্রতিবেদন অনুসারে, প্রতিদিনের আয় সমান হয় না। তবে দিন ভালো গেলে ১৬০ পাউন্ড (১৮,৮০৪.৩৮ টাকা) পর্যন্ত আয় করা সম্ভব। এ হিসাব করলে মাসে প্রায় ৫৬০০০০ টাকা আয় করেন তিনি।

দাঁড়িয়ে থাকার কাজটিকে তিনি অন্যতম সেরা কাজ হিসেবে উল্লেখ করে বলেন, ধনী ও জনপ্রিয় ব্যক্তিদের হয়ে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কেনার কাজটি তিনি বেশ আগ্রহের সঙ্গে করে যাচ্ছেন। তাকে প্রতিদিন ৮ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকার কাজ করতে হয়।

বেকিটের মতে তার ব্যস্ততা শীতকালের চেয়ে গ্রীষ্মকালে বেশি থাকে। কারণ তখন ইংল্যান্ড জুড়ে বড় বড় ইভেন্ট এবং প্রদর্শনী হয়। এ কাজটি তিনি ৩ বছর ধরে করে যাচ্ছেন। পাশাপাশি বেকিট একজন কথাসাহিত্যিকও।

Categories
আলোচিত সংবাদ

শাকিবের বিয়েতে ছেলে জয়কে নিয়ে যা করবেন অপু বিশ্বাস, মুখ খুললেন নায়িকা নিজেই

অপু বিশ্বাস, অভিনেত্রী থেকে এবার হলেন প্রযোজক। পেয়েছেন চলচ্চিত্র নির্মাণে সরকারি অনুদান। নির্মাণ করবেন ‘লাল শাড়ি’ শিরোনামের একটি ছবি। নির্মাতা হতে পেরে উচ্ছ্বসিত অপুর অনুভূতির সাতসতেরো তুলে ধরা হলো-

অভিনেত্রী থেকে নির্মাতা অনুভূতি কেমন?
আমি নিজেকে এ ব্যাপারে খুবই ভাগ্যবান মনে করছি। কারণ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে এ ক্ষেত্রে উপযুক্ত মনে করে আমার ওপর চলচ্চিত্রের মতো একটি প্রধান গণমাধ্যমের সঙ্গে সরকারি সহযোগিতার পাশে আবদ্ধ করেছেন। আমি তাঁর প্রতি চিরকৃতজ্ঞ। তাঁর আশীর্বাদ নিয়েই নির্মাণে আমার প্রথম পথচলা শুরু করতে যাচ্ছি।

অনেকে বলছেন ছবি নির্মাণে অপুর সরকারি অনুদানের প্রয়োজন ছিল না, নিজের অর্থেই হতো, কী বলবেন?
কথাটা আসলে ঠিক নয়, চলচ্চিত্র শিল্পে আমি দীর্ঘদিনের পরীক্ষিত একজন দর্শক গ্রহণযোগ্য শিল্পী। আমার দীর্ঘ অভিনয় জীবনে আমি এই শিল্পকে কম বেশি ভালো কাজ দিতে চেষ্টা করেছি এবং সফলও হয়েছি। তাই সরকারের কাছে আমার একটু হলেও আবদার আছে। সরকারি অর্থে ছবি নির্মাণ করলে সেই ছবির গল্পে অন্যরকম স্বাতন্ত্র্যবোধ থাকে। দেশের মাটির গন্ধ থাকে। দেশের প্রতি নির্মাতার একটি দায়িত্ব বোধ থাকে। এমন অনেক ভাবনা থেকেই সরকারি অনুদানের জন্য আবেদন করেছিলাম।

অভিনয়ে সফল হলেন, এবার নির্মাণে কেমন মুন্শিয়ানা দেখাতে পারবেন বলে মনে করছেন?
চলচ্চিত্র নির্মাণে অনুদান পাওয়া মানে কাজের প্রতি উৎসাহ বেড়ে যাওয়া, আরও অনুপ্রাণিত হওয়া। এখন একজন নির্মাতা হিসেবে নিজেকে বলব, ‘দেশ তোমাকে একটি গুরুদায়িত্ব দিয়েছে, তুমি এই দায়িত্ব পালনে তোমার শতভাগ ডেডিকেশন বাস্তবায়ন কর।’ আসলে এই বোধ থেকে যত্ন নিয়ে দেশের জন্য একটি সমৃদ্ধ কাজ উপহার দিতে চাই।

নিজেকে এখন প্রযোজক বা নির্মাতা হিসেবে ভাবার চেয়েও আমার ওপর অর্পিত দায়িত্ব পালন অনেক বড় হয়ে দাঁড়িয়েছে। চলচ্চিত্র নির্মাণে সরকার যে টাকা দিয়েছে তা দিয়ে দেশকে জনগণের সামনে সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তুলতে চাই। এটি হচ্ছে আমার জন্য বিশাল এক চ্যালেঞ্জ। মানসম্মত কাজ দিয়ে সেই চ্যালেঞ্জে জয়ী হতে চাই।

ছবির নাম ‘লাল শাড়ি’ কেন?
এর অর্থ এখনই বলতে চাই না। কারণ আমি জানি অপেক্ষায় মায়া বাড়ে, প্রেমে পূর্ণতা আসে, তাই আমার প্রিয় দর্শকদের কাছে আমার ছবির গল্পের বিষয়টি সাসপেন্স হিসেবে রাখতে চাই। এতে আমার ছবির প্রতি তাদের মায়া ও প্রেম অবশ্যই বাড়বে।

ছবিটির নির্মাণ কাজ কখন শুরু হচ্ছে?
এ বছরই শুটিং শুরু করব। এখন ছবিটির পরিচালক বন্ধন বিশ্বাস প্রি প্রোডাকশনের কাজ নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছি। এ বছরই ছবির নির্মাণ কাজ শেষ করার পরিকল্পনা রয়েছে।

এবার অন্য প্রসঙ্গ, আগামী দিনগুলো কীভাবে সাজাতে চান?
সৃষ্টিকর্তা সব অবস্থায় সব সময় আমাকে ভালো রেখেছেন, এ জন্য আমি তাঁর কাছে কৃতজ্ঞ। এখন এবং আগামীতে তিনটি কাজ নিয়েই ব্যস্ত থাকতে চাই। এই তিন কাজ হচ্ছে জিম করে নিজের বডি ফিটনেস ঠিক রাখা, আদরের ধন একমাত্র পুত্র জয়কে সঠিক টেককেয়ার করে তাকে আদর্শ মানুষ হিসেবে গড়ে তোলা, অভিনয় ও নির্মাণে দেশ এবং জাতিকে সমৃদ্ধ কাজ উপহার দেওয়া।

আপনার সাবেক স্বামী নায়ক শাকিব খান আগামী বছর বিয়ে করবে বলে জানিয়েছেন, এ ব্যাপারে আপনার অনুভূতি কী?
বাহ্, এটা তো অবশ্যই সুখবর, সে বিয়ে করবে আর আমরা সবাই তার বিয়ের আনন্দ নিয়ে মেতে উঠব। এটাই তো চাই। শাকিবের বিয়েতে আমি আর জয় মহাআনন্দ করব।

শাকিব তো বিয়ে করবে আর আপনার বিয়ে?
আমিও করব, জীবন তো আর একাকী চলে না। তবে এখনই নয়, হাতে অনেক কাজ জমা আছে, সব দায়িত্ব শেষ করে, এক সময় আদর্শবান ও কেয়ারিং একজন মানুষ খুঁজে নিয়ে তার গলায় ভালোবাসার মালা পরাতে চাই। আজীবন
সুখ আর শান্তির বন্ধনে আবদ্ধ হতে চাই। আসলে জীবন হচ্ছে একটা যন্ত্র-
যতক্ষণ ওটা নড়াচড়া করে ততক্ষণই বুঝতে হবে তাতে প্রাণ আছে। যখন ওটা থেমে যাবে তখনই বুঝতে হবে তার মরণ হয়েছে। আমি জীবন-যন্ত্রটাকে সহজে মরতে দিতে চাই না।

Categories
আলোচিত সংবাদ

রাজের পরাণ দেখলেন ৮ মাসের অন্তঃসত্ত্বা পরিমনী

সবার আগে সিনেমা হলে হাজির ৯০ দশকের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা শাবনাজ, তাঁর সঙ্গী দুই মেয়ে। এরপর এলেন ঢালিউডের জনপ্রিয় চিত্রনায়ক আরিফিন শুভ। তারপর একে একে তারার মেলা; চিত্রনায়ক সিয়াম আহমেদ, ইয়াশ রোহান, নিরব হোসেন, নায়িকা বিদ্যা সিনহা মিম, মাহিয়া মাহি, মিশা সওদাগর, চয়নিকা চৌধুরী, পূজা চেরি, প্রার্থনা ফারদিন দীঘিসহ সিনেমা সংশ্লিষ্টরা।

কিন্তু অপেক্ষা যেন শেষ হয় না, বিকেল সাড়ে ৪টার কিছু পরে ‘পরাণ’ সিনেমার নায়ক শরিফুল রাজ এলেন তাঁর ব্যক্তিজীবনের নায়িকা পরী মণিকে নিয়ে। ৮ মাসের অন্তঃসত্ত্বা পরীর জন্য বিশেষ নিরাপত্তাও লক্ষ করা গেল সিনেমা হলে। সিনেমা হলে দেখা মিলল পরীর নানাসহ রাজের পরিবারের সদস্যদের।

সাম্প্রতিক সময়ে মুক্তি পাওয়া সিনেমাগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি আলোচনায় আছে ‘পরাণ’।

সিনেমাটি দ্বিতীয় সপ্তাহে এসে দেশের ৫৫ সিনেমা হলে চলছে বলে জানিয়েছে ডিস্ট্রিবিউশনের দায়িত্বে থাকা অভি কথাচিত্র।

হৃদয়স্পর্শী ত্রিভুজ প্রেমের গল্পের সিনেমা ‘পরাণ’। চিত্রনায়ক শরিফুল রাজ, বিদ্যা সিনহা মিম ও ইয়াশ রোহান অভিনীত সিনেমাটি নিয়ে মুক্তির আগে অন্তর্জালে আলোচনা চলেছে বেশ।

গুঞ্জন আছে, বরগুনার আলোচিত মিন্নি-রিফাত-নয়ন বন্ডের ঘটনার ছায়া অবলম্বনে নির্মাণ হয়েছে এই সিনেমা।

২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরে সিনেমাটির দৃশ্যধারণের কাজ শেষ হয়। চিত্রনাট্য করেছেন শাহজাহান সৌরভ ও রায়হান রাফি। সংগীত পরিচালক নাভেদ পারভেজ ও ইমন চৌধুরী। সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন তরুণ পরিচালক রায়হান রাফি।

Categories
আলোচিত সংবাদ

ব্যাপক জনপ্রিয় কমেডি ওয়েব সিরিজ ভার্জিন ভাস্কর, পরিবারের সাথে একদম দেখবেন না

বর্তমান সময়ে সিনেমা সিরিয়ালের পাশাপাশি গ্ল্যামার ইন্ডাস্ট্রিতে এক নতুন সংযোজন হয়েছে ওয়েব সিরিজের। আসলে প্রযুক্তির সাথে খাপ খাইয়ে চলতে গিয়ে এখন প্রত্যেকেই ইন্টারনেটের মাধ্যমে বিভিন্ন ওয়েব সিরিজ দেখতে পছন্দ করেন। বাংলা, হিন্দি এবং অন্যান্য আঞ্চলিক ভাষার বেশ কিছু ওয়েব সিরিজ টেক্কা দেয় বড় বাজেটের সিনেমাকেও। আসলে করোনা পরবর্তী সময় থেকে ডিজিটাল মিডিয়া কদর বুঝে গিয়েছে সাধারণ মানুষ। আর সেই সাথে পাল্লা দিয়ে চলার জন্য জন্ম নিয়েছে একাধিক প্রতিটি প্ল্যাটফর্মের।

Zee5 এবং AltBalaji হল বিখ্যাত ওটিটি প্ল্যাটফর্ম যেগুলি তাদের জনপ্রিয় ওয়েব সিরিজ যেমন গান্দি বাত, অপ’হরণ, দেব ডিডি ইত্যাদির জন্য তরুণদের মধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছে শেষ কয়েক বছরে। এইসব জনপ্রিয় সিরিজের মাঝে ২০১৯ সালের নভেম্বরে আরেকটি জনপ্রিয় ওয়েব সিরিজ ভার্জি’ন ভাস্কর রিলিজ করেছিল যা নিয়ে এখনো চর্চা চলে ইন্টারনেট দুনিয়াতে। আর হবে নাই বা কেন। এই ওয়েব সিরিজ ছিল কমেডি এবং লাস্যময়ীতার পারফেক্ট কম্বিনেশন।

বারাণসীর পটভূমিতে শুট করা, ভার্জিন ভাস্কর হল একটি ইরোটিক কমেডি ওয়েব সিরিজ যা তরুণ ভাস্করের জীবন কাহিনী নিয়ে আবর্তিত। আসলে এই ভাস্কর হলেন একজন ইউপিএসসি পরীক্ষার্থী। কিন্তু তার পড়াশোনায় খুব একটা মন লাগে না। বরং তার পছন্দের হল কা’মো’ত্তে’জক উপ’ন্যাস লেখা। তাই সে পড়াশোনা ছেড়ে দিয়ে তার কল্পনাপ্রসূত দক্ষতা থেকে কা’মো’ত্তে’জক গল্প বুনেছেন, কিন্তু গল্প এগোলে দেখা যায় তিনি একটি মেয়ে বিধির প্রতি আকৃষ্ট হন সর্বদাই। এরপর বিধিকে কি কোনদিন ভাস্কর তার কাজের কথা বলতে পারবে? বিধি কি মেনে নেবে ভাস্করকে? না সারাজীবন ভার্জিন থেকে যাবে ভাস্কর? জানতে এই ওয়েব সিরিজটি অবশ্যই দেখতে হবে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই ওয়েব সিরিজে মূল চরিত্র ভাস্করের অভিনয় করেছেন অনন্ত ভি জোশি। অন্যদিকে বিধির চরিত্রে অভিনয় করেছেন অভিনেত্রী রুতপান্না ঐশ্বরিয়া। এছাড়া প্রধান দুই চরিত্র মিশ্র এবং রোহণের চরিত্রে অভিনয় করেছেন যথাক্রমে ধীরেন্দ্র কুমার তিওয়ারি ও রোহণ আরোরা। আপনি যদি এই ওয়েব সিরিজটি দেখেতে চান, তাহলে ওলট বালাজি বা জি ফাইভ অ্যাপ ডাউনলোড করুন।

Categories
আলোচিত সংবাদ

রিয়্যালিটি শোয়ের নামে চলে নষ্টামি! সালমানের ‘বিগ বস’ হাউসে এভাবে প্রেগন্যান্ট হয়েছিলেন তেজস্বী!

সলমন খান সঞ্চালিত ‘বিগ বস’ (Bigg Boss) শোয়ের বিপুল জনপ্রিয়তা রয়েছে। ‘বিগ ব্রাদার’এর অনুকরণে তৈরি এই শো দর্শকদের মনোরঞ্জনে কোনও ত্রুটি রাখে না। এই শোয়ের হাত ধরে সিদ্ধার্থ শুক্লা, শেহনাজ গিল, আসিম রিয়াজের মতো তারকারা তাঁদের কেরিয়ারকে অন্য উচ্চতায় নিয়ে গিয়েছেন। এখন ‘বিগ বস’ সিজন ১৬’এর প্রস্তুতি শুরু করেছেন নির্মাতারা। এর মধ্যেই ‘বিগ বস’ সিজন ১৫’এর বিজেতা তেজস্বী প্রকাশকে (Tejasswi Prakash) নিয়ে শোয়ের একটি ‘নোংরা’ সত্যি দর্শকদের মধ্যে ফাঁস হয়ে গিয়েছে।

‘বিগ বস’এর শেষ সম্প্রচারিত সিজনের বিজেতা ছিলেন তেজস্বী। দর্শকদের মধ্যে বিপুল জনপ্রিয়তা ছিল তাঁর। নিজের মিষ্টি এবং শিশুসুলভ ব্যবহারের মাধ্যমে সকলের মন জয় করে নিয়েছিলেন তিনি। তবে আপনি কি জানেন, এই তেজস্বীই গত বছর ‘বিগ বস’ হাউসে প্রেগন্যান্ট হয়ে গিয়েছিলেন? তাঁর সেই প্রেগন্যান্সির কথা জেনে গিয়েছিলেন খোদ সলমন খান (Salman Khan)!

হ্যাঁ, ঠিকই দেখছেন। ‘বিগ বস’ হাউসে কয়েকশো ক্যামেরা থাকা সত্ত্বেও, এই কাজ করেছিলেন তেজস্বী। এবার একথা সকলের সামনে ফাঁস হয়ে যাওয়ার পর প্রিয় তারকার কাণ্ডে অবাক হয়ে গিয়েছেন অনুরাগীরাও। কার সঙ্গে এমন কাণ্ড ঘটালেন ছোট পর্দার ‘নাগিন’? তাঁর গর্ভের সন্তানের পিতা কে ছিল? উঠেছে সেই সব প্রশ্ন।

তবে এক্ষেত্রে জানিয়ে রাখা প্রয়োজন, ‘স্বরাগিনী’ খ্যাত অভিনেত্রী তেজস্বী কিন্তু সত্যি সত্যি গর্ভবতী হয়ে পড়েননি। বরং সলমন খানের নির্দেশ মতো এই কাজ করেছিলেন তিনি। সলমন এবং গোবিন্দা তাঁকে বলেছিলেন, শোয়ের প্রতিযোগী উমর রিয়াজের ওপর একটি ‘প্র্যাঙ্ক’ করতে হবে। সেই মজারই অংশ ছিল তেজস্বীর প্রেগন্যান্ট হওয়ার কথাটি।

তেজস্বী প্রথমে উমরকে বলেছিলেন, তাঁর গ্যাস হয়েছে। যা শুনে পেশায় ডাক্তার উমর হাসতে থাকেন। এরপর সলমন তেজস্বীকে বলতে বলেন, তিনি মা হতে চলেছেন। সঞ্চালকের কথা মতো তেজস্বী উমরকে সেকথা বলেন। যা শুনে হতচকিত হয়ে যান উমর।

অভিনেত্রী তা দেখে বলেন, ‘তোর কি মনে হয়, গ্যাস থেকে কোনও মেয়ে গর্ভবতী হয়ে যেতে পারে?’ একথা শুনে অবাক হয়ে উমর সেখান থেকে বেরিয়ে যান। আসলে, সবটাই সলমন এবং গোবিন্দার প্ল্যান ছিল। আর সেই প্ল্যানকেই বাস্তবায়িত করেছিলেন ‘বিগ বস’ ১৫’এর বিজেতা তেজস্বী।

Categories
আলোচিত সংবাদ

স্বামী ছাড়াও পর পুরুষের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ অভিনেত্রী শিল্পা, মুহূর্তে ভাইরাল ভিডিও

বলিউডে অন্যতম চর্চিত ও শক্তিশালী দম্পতি হলেন রাজ কু’ন্দ্রা ও শিল্পা শেট্টি। একটা সময় কাজের সূত্রে প্রায় সময় লন্ডন যাতায়াত করতেন শিল্পা। ২০০৭ সালে ‘ বিগব্রাদার ৫’এ অংশ নেন তিনি। তখন থেকেই আলাপ হয় ব্যবসায়ী রাজ কুন্দ্রার সঙ্গে। রাজ তখন ব্যাচেলর প্যাড এ থাকতেন। বিদেশে এভাবে থাকার চল আছে। অর্থাৎ, ডিভোর্সী বা ব্যাচেলর পুরুষরা একসঙ্গে একই ছাদের তলায় থাকবে, নিজেদের শখ পূরণ করবে, খেলবে, খাবে, কাজ করবে, এবং প্রয়োজনে যৌ’’ন কর্মী ভাড়া করতে পারবেন।

রাজ সেই সময় শিল্পাকে প্রথম দেখেন। দেখেই পছন্দ করেন। ব্যাচেলর প্যাডে একবার আমন্ত্রণ জানান শিল্পাকে। এই ঘটনা ২০০৭ সালের দিকের। সেই সময় শিল্পা এক কেলে’ঙ্কা’রিতে জড়ি’য়ে যান যা ফের ভাই’রাল হয়েছে সোশ্যা’ল মিডিয়ায়।

এইচআইভি অ্যাওয়ারনেস অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত ছিলেন হলিউড অভিনেতা রিচার্ড এবং অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করছিলেন শিল্পা। সেই সময়, অনুষ্ঠান শেষে রিচার্ড আচমকা শিল্পাকে জড়িয়ে ধরে চু’ম্বন করেন, এতে করেই চর্চায় আসেন শিল্পা। পরবর্তী কালে শিল্পা এই ঘটনা খারাপ লেগেছিল বলে জানান এবং রিচার্ড নিজেও ক্ষমা চান। সম্প্রতি, সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই চু’ম্ব’নের ভিডিও ভাইরাল হয়েছে, বহু মানুষ উকি দিচ্ছে সেই দুঃসাহসিক ভিডিওতে।